settlement.gov.bd জমির ই খতিয়ান ডাউনলোড নিয়ম ২০২৩ Link নতুন নিয়ম সহ

settlement.gov.bd জমির ই খতিয়ান ডাউনলোড নিয়ম ২০২৩ Link [নতুন নিয়ম জানুন]

আজকে আমাদের আলোচনার বিষয় জমির ই-খতিয়ান অনলাইন কপি ডাউনলোড সিস্টেম। আপনি যদি আমাদের ওয়েবসাইটে নতুন হয়ে থাকেন তাহলে অবশ্যই সম্পূর্ণ পোস্টটি পড়বেন। এই পোস্টটি পড়ার পর অবশ্যই আপনার জমিরিক খতিয়ান অনলাইন থেকে চেক করার সম্পূর্ণ পদ্ধতি জানতে পারবেন। যারা এখনো অনলাইনে একই খতিয়ান চেক করতে পারেননি তারা অবশ্যই দ্রুত সময়ের মধ্যে এই কাজটি শেষ করতে পারবেন।

বাংলাদেশের সকল সমস্যাগুলোর অন্যতম একটি হচ্ছে জমি সংক্রান্ত সমস্যা। এর মূলে রয়েছে জমি সম্পর্কে আপনার কম তথ্য জানা। তাই আপনি কতটুকু জানেন বা না জানেন এটা এখন আলোচ্য বিষয় নয়। আপনি অনলাইনে যে কোন সময় আপনার জমির খতিয়ান ওয়েবসাইটের মাধ্যমে পেয়ে যেতে পারবেন। তবে এই খতিয়ান ডাউনলোড করার জন্য আপনাকে কিছু দিক ফলো করতে হবে। এখন আমরা সম্পূর্ণ নতুন নিয়মে খতিয়ান ডাউনলোড করার পদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করতে যাচ্ছি।

জমির খতিয়ান বের করার নিয়ম

http://settlement.gov.bd/

যে কোনো ব্যক্তি তার মালিকানাধীন জমির খতিয়ান বের করার জন্য অবশ্যই খতিয়ান অনুসন্ধান করতে হবে। এক্ষেত্রে আপনি যদি আপনার খতিয়ান অনলাইনে পেয়ে যান তাহলে তা কিছু নিয়ম ফলো করে ডাউনলোড করে নিতে পারেন। বাংলাদেশ সরকারের ডিজিটাল সিস্টেমের আওতায় সকল জমির মালিকানা তথ্য হালনাগাদ চলছে। আপনি চাইলে আপনার নিকটস্থ ভূমি অফিসে গিয়ে অনলাইন ভূমির রেকর্ড চেক করতে পারেন। যদি এখনো আপনার ভূমির রেকর্ড অনলাইন ভার্সন না করা হয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই প্রয়োজনীয় তথ্য দিয়ে হালনাগাদ করে নিবেন।

জমির খতিয়ান বের করার জন্য সরাসরি অফিশিয়াল ওয়েবসাইট http://settlement.gov.bd/ এই লিংকে প্রবেশ করতে হবে। এখান থেকে মৌজা অন্তর্ভুক্ত তালিকা দেখে তারপর খতিয়ান চেক করতে হবে। তবে এই কার্যক্রম গুলো কেবলমাত্র ভূমি অফিসে কর্তব্যরত কম্পিউটার অপারেটর এর মাধ্যমে সম্পাদন করতে হবে।

জমির এস এ খতিয়ান বের করার নিয়ম

এখন আসুন এস খতিয়ান এর অনলাইন কপি বের করার সিস্টেম। যদি সঠিক নিয়মটি আপনার জানা না থাকে তাহলে অবশ্যই গুগলে সার্চ করবেন ” এস খতিয়ান বের করার নিয়ম” অথবা আপনি http://settlement.gov.bd/s-khatian/ এই লিংকে প্রবেশ করে বাকি তথ্য দেখে নিতে পারবেন।

তবে বাংলাদেশের সকল জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে জমির এস খতিয়ান বের করার জন্য অবশ্যই সরকার অনুমোদিত অফিসিয়াল ওয়েবসাইট ব্যবহার করতে হবে। আপনাদেরকে অবশ্যই দালাল থেকে বিরত থাকতে হবে। কেননা এখন সকল কার্যক্রম সরকারি কর্মকর্তা ও কম্পিউটার অপারেটরের মাধ্যমে সম্পাদন করা হয়। তাই এলাকাভিত্তিক জমির দালাল এর মাধ্যমে কোন প্রকার কাজ করতে যাবেন না। তাহলে আপনার কাছ থেকে অতিরিক্ত টাকা আদায় করতে পারে।

অনলাইনে জমির খতিয়ান অনুসন্ধান

এটি একটি সহজ পদ্ধতি যে, অনলাইনে খতিয়ান ডাউনলোড করার পূর্বে আপনাকে তা অনুসন্ধান করার পদ্ধতি দেওয়া আছে। অবশ্যই যখন আপনি অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে প্রবেশ করবেন তারপর এ অনুসন্ধানটি চালাতে পারেন।

http://settlement.gov.bd/khatian/search

অনলাইনে জমির খতিয়ান অনুসন্ধান

অনলাইন জমির খতিয়ান অনুসন্ধান করার জন্য উপরের লিংকে প্রবেশ করুন। তারপর এখানে ছবিতে দেওয়া তথ্য গুলো সঠিকভাবে ইনপুট করতে হবে। সর্বশেষ এই ছবিটির ডানে নিচের দিকে “ফলাফল দেখাও” এই লেখাটিতে ক্লিক করে অপেক্ষা করতে হবে। তবে অবশ্যই মনে রাখবেন আপনার এখানে দেওয়া সকল তথ্যগুলো অবশ্যই ইনপুট দিতে হবে। তার জন্য এই তথ্যগুলো আপনার অবশ্যই জেনে তারপর আপনার জমির খতিয়ান অনলাইনে চেক করবেন।

জমির খতিয়ান ডাউনলোড

অবশেষে আপনি যদি আপনার খতিয়ানটি অনলাইনে দেখতে পান তাহলে অবশ্যই তা ডাউনলোড করে রেখে দিতে পারেন। ভবিষ্যতে যদি আপনার ভাই, বাবা,-মা, চাচা, চাচি, মামা, ইত্যাদি আত্মীয়-স্বজনদের সাথে জমি সংক্রান্ত কোনো সমস্যা হয় তাহলে আপনার এই খতিয়ানটি অনেক গুরুত্ব বহন করবে। তাই অনলাইন জমির খতিয়ান ডাউনলোড একটি গুরুত্বপূর্ণ কাজ। উপরে প্রদত্ত লিংকে ক্লিক করে খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে খতিয়ান ডাউনলোড করতে পারবেন।

জমি সংক্রান্ত কোনো প্রকার তথ্য জানার থাকলে অবশ্যই আমাদেরকে কমেন্ট করে জানান। আপনি এখান থেকে কোন প্রকাশ সুবিধা পেয়ে থাকলে অথবা কনটেন্টটি ভালো লেগে থাকলে অবশ্যই ফেসবুকে শেয়ার দিতে ভুলবেন না। সবার আগে সকল প্রকার নিউজ আপডেট পেতে আমাদের ওয়েবসাইট ফলো করুন।